অনলাইন ডেস্কঃ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়াডে সিরিজের প্রথমটিতে নিজের ও দলের খাতা শূন্য রেখেই আউট হয়ে গেলেন তামিম।

পেসার মুজারাবানির দ্বিতীয় ওভারের প্রথম বলেই উইকেটরক্ষক চাকাভার হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে আউট হন বাংলাদেশ অধিনায়ক।

৭ বল মোকাবিলা করে রানের খাতাই খুলতে পারেননি তিনি।

আর এরই সঙ্গে ডাক মারার কলঙ্কিত রেকর্ডের খাতায় শীর্ষে নাম লেখালেন বাংলাদেশের সবচেয়ে সফলতম ওপেনার।

ওয়ানডেতে ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বাংলাদেশের হয়ে সবচেয়ে বেশিবার শূন্য রানে আউটের শিকার এখন তিনিই।

ওয়ানডেতে তামিমের এটি ১৯তম শূন্য। ১৮ শূন্য নিয়ে এতদিন সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশারের সঙ্গে যৌথভাবে শীর্ষে ছিলেন তামিম। শুক্রবার হাবিবুল বাশার দুইয়ে নামালেন তিনি।

১৫টি করে ডাক মেরে এই সংস্করণে যৌথভাবে তৃতীয় অবস্থানে আরেক সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা ও স্পিনার মোহাম্মদ রফিক।

তবে লজ্জার রেকর্ডে সব দেশ মিলিয়ে ওপেনার হিসেবে শীর্ষে আছেন যিনি, তার নাম শুনলে হয়তো কষ্ট কিছুটা লাঘব হবে বাংলাদেশিদের।

ওপেনারদের মধ্যে শূন্যের বিশ্বরেকর্ডের শীর্ষে লঙ্কান কিংবদন্তি সনৎ জয়াসুরিয়া, ২৯টি। ২৩টি ডাক নিয়ে দ্বিতীয়তে আছেন ক্যারিবীয় দানব ক্রিস গেইল। আর তামিমের অবস্থান তিনে।

আর তিন সংস্করণ মিলিয়ে তামিমের শূন্য এখন ৩৪টি। এতদিন ৩৩ শূন্য নিয়ে মাশরাফির সঙ্গে যৌথভাবে শীর্ষে ছিলেন। মাশরাফি দ্বিতীয়তে নেমে যাওয়ায় ৩১ ইনিংসে শূন্য নিয়ে তৃতীয়তে আশরাফুল।

তিন সংস্করণ মিলিয়েও ওপেনারদের মধ্যে শূন্যের বিশ্বরেকর্ডে তামিম আছেন তিনে। ৪৫টি শূন্য জয়াসুরিয়ার, ৪০টি গেইলের। সূত্রঃ যুগান্তর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here