অনলাইন ডেস্কঃ পুরুষ এককে সর্বোচ্চ ২০টি গ্র্যান্ড স্লাম জিতে রজার ফেদেরার ও নাদালের রেকর্ডে ভাগ বসানোর আনন্দে ভাসছেন নোভাক জোকোভিচ। এবারের উইম্বলডন জয়ের পর তার নামের পাশে যোগ হয়েছে আরো বেশ কিছু রেকর্ড। অর্জনের খাতাকে করেছেন সমৃদ্ধ।

এখানেই থামতে চান না সার্বিয়ান তারকা। উইম্বলডন জয়ের পর আধুনিক যুগের টেনিস খেলোয়াড়দের মধ্যে নিজেকে সেরা দাবি জোকোর। তবে, টোকিও অলিম্পিকে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত এখনও নিতে পারেননি তিনি।এবারের উইম্বলডনে অংশ নেয়া নিয়েই ছিলো অনিশ্চয়তা নোভাক জোকোভিচের। কিন্তু রেকর্ড যাকে চুম্বকের মত টানে তাকে তো আর কোন ভাইরাসের ভয়েই আটকে রাখা যায়নি। উইম্বলডনের শিরোপা জয়ের পর পুরুষ এককে ২০টি গ্যান্ডস্লাম জয়ের স্বাদ পেলেন জোকো। ভাগ বসিয়েছেন ফেদেরার ও নাদালের রেকর্ডে।

এই এক রকের্ড গড়েই ক্ষ্যান্ত হননি সার্বিয়ান তারকা। রজার ফেদেরার, বিয়ন বর্গ ও পিট সাম্প্রার্সের পর উন্মুক্ত যুগে চতুর্থ খেলোয়াড় হিসেবে উইম্বলডনে টানা তৃতীয় শিরোপা জয় করলেন জোকো।

রেকর্ড এখানেই শেষ হয়নি। ক্যারিয়ারে টানা তিনবার কোন গ্র্যান্ডস্লাম শিরোপা এ নিয়ে রেকর্ড তৃতীয়বারের মত জিতলেন জোকো। এর আগে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে দুই দফায় টানা তিনবার করে ২০১১ থেকে ২০১৩ ও ২০১৯ থেকে ২০২১ সালে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন তিনি।

সবচেয়ে বেশি ৩২৮ সপ্তাহ র‌্যাংকিংয়ে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছেন জোকোভিচ। গেল মার্চে ফেদেরারের ৩১০ সপ্তাহ ধরে শীর্ষ থাকার রেকর্ডটি ভাঙেন তিনি।এ নিয়ে পুরুষ এককে ৩০তম বারের মত গ্র্যান্ডস্লামের ফাইনালে খেললেন জোকো। এ যাত্রায় তার চেয়ে মাত্র একবার বেশি ফাইনাল খেলেছেন ফেদেরার।

ইতিহাসের দ্বাদশ খেলোয়াড় হিসেবে রোঁলাগ্যাঁরো ও উইম্বলডনে ব্যাক টু ব্যাক শিরোপা জিতলেন জোকোভিচ। ১৯৬৯ সালে রড লেভার সর্বশেষ এই কীর্তি গড়েছিলেন।

রড লেভার ও রয় এমারসনের পর ইতিহাসের তৃতীয় খেলোয়াড় হিসেবে বছরের চারটি গ্র্যান্ডস্লামের সবগুলো অন্তত দু’বার করে জিতেছেন জোকোভিচ। গেল বছর জুনে ফ্রেঞ্চ ওপেনে নিজের দ্বিতীয় শিরোপাটি জিতে এ রেকর্ড গড়েন তিনি।

এমন অর্জনের পর টেনিসের আধুনিক যুগে নিজেকে সেরা দাবি জোকোভিচ।

সার্বিয়া‘র টেনিস খেলোয়াড় নোভাক জোকোভিচ বলেন, ফেদেরার ও জোকোভিচকে ছাড়িয়ে যাওয়া আমার জন্য সেরা প্রাপ্তি। এটা আমাকে সামনে এগিয়ে যেতে সাহায্য করবে। রেকর্ড বরাবরই আমার অনুপ্রেরণা। এখানেই থামতে চাইনা। আমি মনে করি টেনিসের আধুনিক যুগের খেলোয়াড়দের মধ্যে আমিই সেরা। অলিম্পিক নিয়ে দ্বিধায় আছি। খেলবো কিনা এখনও সিদ্ধান্ত নেইনি।

তবে, পরিস্থিতি যাই হোক না কেন জোকোভিচ সমর্থকরা চান তিনি খেলুক টোকিও অলিম্পিকে। সূত্রঃ সময় নিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here