অনলাইন ডেস্কঃ বলিউডের ঝলমলে দুনিয়াকে বিদায় দিয়ে অভিনেত্রী সানা খান জানিয়েছিলেন, ইসলামের পথে চলতে চান তিনি। এই ঘোষণার মাস না পেরোতেই গত বছরের ২১ নভেম্বর মুফতি আনাস সায়েদের সঙ্গে প্রণয়ে বাঁধা পড়েন সানা।

এর পর ধর্মেকর্মেই মন দিয়েছেন সাবেক এই অভিনেত্রী। বিয়ের পর প্রথমবারের মতো স্বামীকে নিয়ে ওমরাহ করতে গেছেন তিনি।

ওমরাহ পালনের ফাঁকে কাবা শরীফের কালো গিলাফ সেলাইয়ের কাজে অংশ নেওয়ার সৌভাগ্য অর্জন করেছেন সানা খান।

নিজের ভ্যারিফাইড ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে এই তথ্য জানিয়ে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন তিনি।

ভিডিওর ক্যাপশনে সানা খান লিখেন, ‘আমি স্বপ্নেও কখনও ভাবিনি যে, আল্লাহতায়ালা আমার জন্য এতবড় সৌভাগ্য লিখে রেখেছেন যে, আমি কাবা শরীফের গিলাফ সেলাইয়ের মহান কাজে অংশ নিতে পারবো। আল্লাহ অনেক দয়ালু।’

বিরল এ কাজের সুযোগ করে দেওয়ায় সৌদি সরকারকেও ধন্যবাদ জানান তিনি। এছাড়া স্বামী মুফতি আনাসকেও স্মরণ করেন সানা খান।

প্রসঙ্গত সানা খান ‘ওয়াজাহ তুম হো’, ‘জয় হো’সহ  একাধিক বলিউড সিনেমায় অভিনয় করে সিনেপ্রেমীদের হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছেন। অনেক আঞ্চলিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন সানা।

টেলিভিশনে বেশ কিছু রিয়ালিটি শোতে অংশ নিয়েছেন। বিগ বস ৬-এ জনপ্রিয়তার শিখরে পৌঁছেছিলেন এই অভিনেত্রী।  কিন্তু হঠাৎ ১৫ বছরের ক্যারিয়ারের ইতি টেনে বাকি জীবন আল্লাহের পথে চলার ও সমাজসেবা করার কথা জানিয়েছিলেন সানা। সেই সঙ্গে সবাইকে কাজের জন্য জোরাজুরি না করতে ও অভিনয়ের প্রস্তাব না দিতে অনুরোধ করেছিলেন তিনি। সূত্রঃ যুগান্তর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here