অনলাইন ডেস্কঃ প্রায় ২০ মাস পর খুললো স্কুলের দরজা। করোনা মহামারির কারণে ২০২০ সালে মার্চ মাসে বন্ধ হয়ে গিয়েছিল ভারতের অন্য রাজ্যের সব স্কুল-কলেজ-শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মতো পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানও। আজ মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) থেকে ফের পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে ক্লাস শুরু হয়েছে।

স্কুলের সামনে লম্বা লাইন করে পড়ুয়ারা স্কুলের ভেতরে প্রবেশ করেছে।  বাইরে অপেক্ষা করতে দেখা যাচ্ছে পড়ুয়াদের বাবা-মা-দেরও।

স্কুলে প্রবেশের সময় কঠোর করোনাবিধি মানতে দেখা যাচ্ছে। মুখে মাস্ক এবং শরীরের তাপমাত্রা দেখে শিক্ষার্থীদের স্কুলের অভ্যন্তরে প্রবেশ করানো হচ্ছে।

এমনকি স্কুলের ভেতরে ক্লাসে প্রত্যেক বেঞ্চে মাত্র একজন করে পড়ুয়া বসানো হচ্ছে। প্রতিটি ক্লাসে ২৪ শতাংশ ছাত্রছাত্রীদের বসার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে। 

প্রথম পর্যায়ে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রছাত্রীদের নিয়েও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা হলেও আগামীতে সব শ্রেণির জন্য খুলে দেওয়া হবে স্কুলের দরজা।

রাজ্যটির শিক্ষা মন্ত্রী ব্রাত্য বসু জানিয়েছেন, করোনা বিধি মেনেই স্কুল গুলোকে শিক্ষাকার্যক্রম চালাতে হবে। আগামী কয়েক সপ্তাহ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ৯ম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির ক্লাস শুরু হলো এখন। করোনা পরিস্থিতি দেখে আগামীতে বাকি শ্রেণির জন্য খুলে দেওয়া হবে স্কুল। 

প্রায় দেড় বছর পর স্কুলে এসে প্রাণ ফিরে পেয়েছেন ছাত্রছাত্রীরা। যেমন দক্ষিণ কলকাতার কমলা গার্লস স্কুলের পড়ুয়া রুমি রায়ের ভাষায়, মনে হয় প্রাণ ফিরে পেলাম। ঘরে বসে অনলাইনে ক্লাস করতে করতে চোখ নষ্ট হয়ে গেছে। তেমন পড়াশোনাও কিছু হচ্ছিল না। সব চেয়ে বড় কথা, স্কুলে ঢুকে ক্লাস রুমে বসে পড়াশোনার যে আনন্দ সেটা তো পাচ্ছিল না। সেটা এবার থেকে শুরু হলো; তাতেই আমি খুশি।

রুমির মা তাপতি রায়ও একইভাবে বললেন যে, বাচ্চাকে নিয়ে তিনি রোজই আসতেন স্কুলে। প্রায় দেড় বছর সেটা হয়নি। স্কুলে এসে অনেক বাচ্চার মায়ের সাথে বন্ধুত্ব হয়েছে। তাদের কারো সাথে কোনও যোগাযোগ ছিল না। আবার তারা এসেছেন, কথা হচ্ছে খুব ভালো লাগছে এতো দিন পর তাদের দেখতে পেরে। সূত্রঃ সময় নিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here