অনলাইন ডেস্কঃ ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে পুলিশকে ছুরি দিয়ে জিম্মি করে হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গেছেন এক মাদকাসক্ত তরুণ।

বুধবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের সার্জারি বিভাগে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী হাসপাতালের স্টাফরা জানান, রাত ৯টার দিকে দুজন পুলিশ সদস্য এক তরুণকে ওয়ার্ডে নিয়ে আসেন। তরুণটি রক্তাক্ত ছিলেন। ভর্তির কাগজ ওয়ার্ডে জমা দেওয়ার আগে তরুণটি একটি ছুরি নিয়ে পুলিশের ওপর হামলা করতে যান।

এ সময় ওই পুলিশ সদস্য ওয়ার্ডের বাইরে গিয়ে কলাপসিবল গেট লাগিয়ে দেন। পরে ওই তরুণ সার্জারি ওয়ার্ডের ভেতরে থাকা অপর পুলিশ সদস্যকে ছুরি দিয়ে জিম্মি করার চেষ্টা করে। পরে আরও এক সদস্য আসলে গেটের বাইরে থাকা পুলিশ সদস্যটি গেট খুলে ওয়ার্ডের ভেতরে আসতে চাইলে এই সুযোগে ওই তরুণ পালিয়ে যান।

হাসপাতালের জরুরি বিভাগ সূত্রে জানা যায়, ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলওয়ে ফাঁড়ি এক তরুণকে নিয়ে আসে। রেজিস্ট্রারে তার নাম রুবেল (২২),  বাড়ি সিলেটের সদরের দেলোয়ারের ছেলে উল্লেখ্য করে লিপিবদ্ধ করা হয়।

এ বিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপপরিদর্শক রোমান খাঁন যুগান্তরকে জানান, রেলওয়ে স্টেশন এলাকায় একটি ছেলেকে আহতবস্থায় দেখে পুলিশ। ছেলেটি ভবঘুরে ও মাদকাসক্ত ছিল। তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশ। সেখান থেকে সে পালিয়ে যায়। আপাতত এইটুকু বলতে পারছি। সূত্রঃ যুগান্তর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here