অনলাইন ডেস্কঃ রাজধানীর মিরপুরে ১১নম্বর সেকশনের একটি বাসার নিচতলায় গ্যাস রাইজার বিস্ফোরণে শিশুসহ সাতজন দগ্ধ হয়েছে।

বুধবার (২৫ আগস্ট) দিবাগত রাত ১২টার দিকে মিরপুর ১১ নম্বর সেকশনের সি ব্লকে ঘটনাটি ঘটে। তাদেরকে শেখ হাসিনা বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে।


দগ্ধরা হলেন- বাড়ির মালিক রফিকুল ইসলামের মা রওশনারা বেগম (৭০), ভাই শফিকুল ইসলাম (৩৫), ছোট বোন রিনা বেগম (৫০), বাসার নিচ তলার ভাড়াটিয়া নাজনীন আক্তার (২৫) তার মেয়ে নওশীন (৫), পাশের বাসার ভাড়াটিয়া রেনু বেগম (৩৫) ও পথচারী সাজ্জাদ হোসেন (৩০)।

দগ্ধ রওশন আরা বেগমের ছেলে রফিকুল ইসলাম জানান, তাদের  ছয়তলা নিজেদের বাড়ি। বাড়ির  নিচতলায় তিতাস গ্যাসের লাইন লিকেজ ছিল। দুইদিন আগে লিকেজ মেরামত করা হয়। কিন্তু পরে রাত ১২টার দিকে হঠাৎ বিকট আওয়াজ করে বিস্ফোরণ হয়। এতে তারা দগ্ধ হন। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে বার্ন ইনস্টিটিউটে নিয়ে আসা হয়েছে।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ বক্সের ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া দগ্ধের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, মিরপুর থেকে শিশুসহ সাতজন দগ্ধ হয়েছেন। তাদেরকে বার্ন ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের সবার অবস্থাই গুরুতর।

পল্লবী থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) মো. নাসির উদ্দিন জানান, কয়েকদিন ওই বাড়িতে গ্যাস ছিল না। আজ রাতে লাইনে হঠাৎ গ্যাসের চাপ বেড়ে যায়। এ সময় বাড়ির মালিকসহ নিজেরাই গ্যাস রাইজার পরিষ্কার করছিলেন। হঠাৎ করে সেটা বিস্ফোরণ হয়ে আগুন ধরে যায়। এতে সাতজন দগ্ধ হন। পরে ফায়ার সার্ভিস খবর পেয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘটনার বিস্তারিত আরও জানার চেষ্টা চলছে। সূত্রঃ সময় নিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here