মিরপুরে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের সামনে চাকরি জাতীয়করণ, বেতন বৈষম্য নিরসনসহ মোট চার দফা দাবি নিয়ে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করছেন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ৫ হাজার দফতরি-কাম প্রহরী।

সোমবার (২৪ আগস্ট) সকাল ১০টা নাগাদ থেকে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্মচারী কল্যাণ সমিতির ব্যানারে দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে আসা কয়েক হাজার দফতরি কাম প্রহরীরা একত্রিত হয়ে মিরপুরে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের সামনের সড়কে অবস্থান নিয়ে চার দফা দাবিতে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছেন।

এতে করে মিরপুরের সড়কগুলোতে দেখা দিয়েছে ব্যাপক যানজট। যাত্রীরা পড়েছেন চরম দুর্ভোগে।

বিক্ষভকারীদের সাথে কথা বলে জানা যায়,দেশে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রায় ৩৭ হাজার দফতরি কাম প্রহরী নিয়োগ দেয়া হয়েছে। সরকারি চাকরি করার পরেও তাদের ন্যায্য বেতন-ভাতা দেয়া হচ্ছে না। তারা দিনে দাফতরিক কাজ আর রাতে প্রহরার দায়িত্ব পালন করছে। তারা ২০১৩ সালের পর থেকে এ পদে ২৪ ঘণ্টা দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে।বিষয়টা তাদের কাছে অমানবিক ও নজিরবিহীন লেগেছে।তাই তারা চার দফা দাবিতে সকাল থেকে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর ঘেরাও করেছেন।

বিক্ষভকারীরা আরও জানায়, দফতরি-কাম-প্রহরী পদটি জাতীয়করণ, ৮ ঘণ্টা কর্মঘণ্টা নির্ধারণ ও কাজের ধরন নির্ধারণ এবং অবিলম্বে হাইকোর্টের রায় বাস্তবায়নের জন্য সারাদেশ থেকে সমাবেত হয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন।

প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্মচারী কল্যাণ সমিতির যুগ্ম আহ্বায়ক মামুন সরদারের কাছ থেকে জানা যায়, তাদের দাবি বাস্তবায়নের সুনির্দিষ্ট ঘোষণা না দেয়া পর্যন্ত তাদের অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here