অনলাইন ডেস্কঃ সুন্দরবনে সুপতি এলাকার খালে বিষ প্রয়োগ করে মাছ ধরার দায়ে তিন জেলেকে আটক করেছে বনরক্ষীরা। এদিকে পৃথক আরও দুটি অভিযানে শরণখোলা রেঞ্জের কটকা অভয়ারণ্য ও চান্দেশ্বর এলাকা থেকে অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিয়োগে ১৪টি ট্রলারসহ ১৭ জেলেকে আটক করা হয়।

শনিবার সুন্দরবনে অভিযান চালিয়ে এসব জেলেদের আটক করে বনবিভাগ।

বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জ কর্মকর্তা (এসিএফ) মো. শামসুল আরেফীন জানান, শনিবার সুন্দরবনের সুপতি স্টেশনের আওতাধীন বনের একটি খালে বিষ দিয়ে মাছ ধরার সময় তিন জেলেকে হাতেনাতে আটক করে স্মার্ট টিমের সদস্যরা। শরণখোলা বাজারের মৎস্য ব্যবসায়ী জালাল মোল্লার নৌকার জেলে। তাদের কাছ থেকে একটি ডিঙি নৌকা, ২০ কেজি চিংড়ি ও এক বোতল কীটনাশক উদ্ধার করা হয়। আটক জেলেদের বাড়ী বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার চালিতাবুনিয়া গ্রামের সাজেদুল ইসলাম, রিপন হাওলাদার ও খুড়িয়াখালী গ্রামের জাফর তালুকদার।

শনিবার কটকা অভয়ারণ্য এলাকায় অবৈধ অনুপ্রবেশ করায় ৮টি ফিশিং ট্রলারসহ পাথরঘাটা এলাকার ৮ জেলেকে আটক করে বনরক্ষীরা। এসময় ট্রলারে থাকা আরো ১৫-১৬ জন জেলে লাফিয়ে পড়ে বনে পালিয়ে যায়। তাদেরকে খুঁজে বের করা চেষ্টা চলছে। আটক জেলে ও ট্রলারের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে। সূত্রঃ বিডি প্রতিদিন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here