আজ সকালে লেবাননের শিয়াগোষ্ঠী হিজবুল্লাহর কয়েকটি সীমান্ত চৌকিতে ইসরায়েল বিমান হামলা চালিয়েছে।

এর আগে ইসরায়েলি সেনাদের দিকে লেবানন থেকে গুলি করার অভিযোগ করা হয়েছে।  এই খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

লেবানন থেকে গুলিবর্ষণের ওই ঘটনায় কোনো ইসরায়েলি সেনা আঘাত পায়নি। ইসরায়েলি বাহিনী জানিয়েছে, তারই জবাবে তারা ইলুমিনেশন ফ্লেয়ার, স্মোক শেল ও পাল্টা গুলিবর্ষণ করে।

তারা বলেন, গুলিবর্ষণের জবাবে ইসরায়েলের প্রতিরক্ষা বাহিনীর (আইডিএফ) অ্যাটাক হেলিকপ্টারগুলো ও বিমান রাতে  সীমান্ত এলাকায় হিজবুল্লাহর পর্যবেক্ষণ পোস্টগুলোতে আঘাত হেনেছে।

এ বিষয়ে হিজবুল্লাহর পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য আসেনি বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

এদিকে, মার্কিন প্রেসিডেন্টের শীর্ষ উপদেষ্টাসহ এক দল ইসরায়েলি প্রতিনিধি সোমবার সংযুক্ত আরব আমিরাত সফরে যাচ্ছে।

মধ্যপ্রাচ্যের দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণের এবং সেটা আরও শক্ত অবস্থানে নেয়া সম্পর্কে আলোচনা করতেই তাদের এই সফর।

গত ১৩ আগস্ট যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় অবৈধ রাষ্ট্র ইসরায়েলের সাথে আমিরাতের সম্পর্ক স্থাপনের ঘোষণার পর এটাই ত্রিদেশীয় কোনো বৈঠক হতে যাচ্ছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, দূতাবাস খোলা, বাণিজ্য ও ভ্রমণের মতো বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হওয়ার কথা রয়েছে। হোয়াইট হাউসের জ্যেষ্ঠ উপদেষ্টা জারেড কুশনার, জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা রবার্ট ও’ব্রেইন ও মধ্যপ্রাচ্যবিষয়ক মার্কিন উপদেষ্টা অ্যাভি বারকোইটজসহ অন্যান্য কর্মকর্তা ইসরাইলি প্রতিনিধিদলের সাথে ভ্রমণে থাকবেন।

সফরে ইসরায়েলের প্রতিনিধিদের নেতৃত্ব দেবেন মেইর বিন-শাব্বাট। এক ভিডিওবার্তায় ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু এসব তথ্য দিয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রে এক সিনিয়র কর্মকর্তা কুশনার, ও’ব্রেইন ও বারকোইটজের সফরের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। সফরকারী দলের সাথে যুক্তরাষ্ট্রের ইরানবিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি ব্রিয়ান হুকেরও থাকার কথা রয়েছে।

তেলআবিব থেকে একটি ইসরাইলি বিমানযোগে মার্কিন ও ইসরায়েলের কর্মকর্তারা আবুধাবিতে যাবেন। দুই দেশের মধ্যে যেটি হবে প্রথম কোনো বাণিজ্যিক বিমানের ভ্রমণ।

বাণিজ্য, আর্থিক, স্বাস্থ্য, বিমান, পর্যটন, জ্বালানি ও নিরাপত্তা ইস্যুতে দুই দেশের সহযোগিতা নিয়েও ব্যাপক আলোচনা হবে বলে জানা গেছে।

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বলেন, এটি এক ঐতিহাসিক চুক্তি। এ অঞ্চলের অন্যান্য দেশও আমাদের শান্তির দলের যোগ দেবেন বলে আশা করছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here