বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিতের মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়ানোর পক্ষে মত দিয়েছে আইন মন্ত্রণালয়।করোনায় বাড়িতে থেকে চিকিৎসা করানোর জন্য সাজা স্থগিতের পক্ষে মত দিয়েছে আইন মন্ত্রণালয়। আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বৃহস্পতিবার (০৩ সেপ্টেম্বর) বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে নিজ বাসা থেকে চিকিৎসা নেয়ার আগের শর্তেই তার সাজা আরও ছয় মাসের জন্য স্থগিত করার পক্ষে আইন মন্ত্রণালয় থেকে মত দেয়া হয়েছে।

আনিসুল হক বলেন, আমাদের মতামত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠিয়েছি। এখন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে পাঠানো হবে।এদিকে আইন মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, খালেদা জিয়ার পরিবারের পক্ষ থেকে সরকারের কাছে স্থায়ীভাবে মুক্তি চেয়ে আবেদন করা হয়েছিল। কিন্তু আইন মন্ত্রণালয় সেটি বিবেচনা করেনি।

আরো পড়ুন:- বিরল প্রজাতির মাছ ধরা পড়লো বঙ্গোপসাগরে
‘উচ্চশব্দে’ মাইকে আযান না দেয়ার নির্দেশ আদালতের

আবেদনে বেগম জিয়াকে বিদেশে নিয়ে চিকিৎসা করানোর বিষয়ও তার পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল। তবে আইনমন্ত্রী জানান, বিদেশে নিয়ে চিকিৎসার ব্যাপারে পরিষ্কারভাবে তারা আবেদনে জানাননি।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলার এক রায়ে ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে কারাজীবন শুরু হয় সাবেক এ সরকার প্রধানের।পরে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায়ও তার সাজা হয়। বর্তমানে বেগম জিয়া গুলশানে তার ভাড়া বাসায় রয়েছেন। তিনি আর্থারাইটিস, ডায়াবেটিস, চোখের সমস্যাসহ বার্ধক্যজনিত নানা সমস্যায় ভুগছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here