বিএনপি-জামায়াতের আশ্রয়-প্রশ্রয়ের কারণে জঙ্গিবাদ পুরোপুরি নির্মূল করা যাচ্ছে না বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।তিনি বলেন,তাদের আশ্রয়-প্রশ্রয়ে জঙ্গিরা শাখা-প্রশাখা বিস্তার করেছিলো, জঙ্গিরা শক্তিশালী হয়েছিলো। জঙ্গিরা সেই শক্তি প্রদর্শন করার লক্ষ্যে ৬৩ জেলায় একযোগে বোমা হামলা চালিয়েছিলো।চট্টগ্রাম নগরের ফয়েজ লেক এলাকার বেসরকারি ইম্পেরিয়াল হাসপাতালের “কোভিড কেবিন ব্লক” উদ্বোধন অনুষ্ঠানে সোমবার (১৭ আগস্ট) সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।

জঙ্গি দমনে সরকারে অবদান উল্লেখ্য করে তথ্যমন্ত্রী বলেন,‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার জঙ্গি দমনে অনেক দেশের চেয়ে অনেক বেশি সফলতা দেখাতে সক্ষম হয়েছে। আমরা জঙ্গি নির্মূল করতে পেরেছি, সেই দাবি আমরা করবো না। তবে জঙ্গি দমন করা সম্ভব হয়েছে।


ড. হাছান মাহমুদ বিএনপি-জামায়াত জোটকে জঙ্গিদের মদদ দেয়ার অভিযোগ করে বলেন, ‘২০০৫ সালের এ দিনে দেশের ৬৩ জেলায় একযোগে ৫শ’র বেশি জায়গায় বোমা হামলা চালানো হয়েছিলো। বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বাধীন বিএনপি-জামায়াত সরকার তখন ক্ষমতায় ছিল। যারা বোমা হামলা চালিয়েছিলো, তাদের দোসররা বিএনপির জোটের মধ্যে আছে।রাজনৈতিক আশ্রয়-প্রশ্রয় যদি জঙ্গিদের না থাকতো তাহলে, জঙ্গি নির্মূল করা সম্ভব হতো।’

দেশে করোনা নিয়ন্ত্রণ প্রসঙ্গে করোনা ভাইরাস প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করা হয়েছে। সেটিকে অনেকটা নিয়ন্ত্রণ করতে আমরা সক্ষম হয়েছি।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ইম্পেরিয়াল হাসপাতালের বোর্ড চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. রবিউল হোসেন,ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমজাদুল ফেরদৌস চৌধুরী, প্রফেসর মো. নুরুল আমিন, ডা. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী,দৈনিক আজাদী সম্পাদক এম এ মালেকসহ অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here