দেশের প্রথম নারী আলোকচিত্রী সাইদা খানম সোমবার দিবাগত রাত তিনটায় বনানীর বাসভবনে ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না লিল্লাহি রাজিউন।

তার বাবার নাম আবদুস সামাদ খান, মা নাছিমা খাতুন। পৈতৃক বাড়ি ফরিদপুরের ভাঙায় হলেও তার জন্ম পাবনায়, ১৯৩৭ সালের ২৯ ডিসেম্বর।

তিনি বাংলা একাডেমির আজীবন সদস্য ছিলেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা সাহিত্য ও লাইব্রেরি সায়েন্সে মাস্টার্স করেন তিনি।

তিনি ১৯৭৪ সাল থেকে ১৯৮৬ সাল পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের সেমিনার লাইব্রেরিতে লাইব্রেরিয়ান হিসেবে কর্মরত ছিলেন। আলোকচিত্রী হিসেবে কাজ করেছেন অনেকদিন। দুটো জাপানি পত্রিকাসহ দেশের বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় তার তোলা আলোকচিত্র মুদ্রিত হয়েছে।

সাইদা খানম ১৯৫৬ সালে ঢাকায় আয়োজিত আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীতে অংশ নেন। সে বছরই জার্মানিতে ইন্টারন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড কোলন পুরস্কার পান তিনি। তারপরই বাংলাদেশে আলোচনায় আসেন। অতপর ভারত, জাপান, ফ্রান্স, সুইডেন, পাকিস্তান, সাইপ্রাস ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে তাঁর বেশ কয়েকটি প্রদর্শনী হয়। জাপানে ইউনেসকো অ্যাওয়ার্ড, অনন্যা শীর্ষ দশ পুরস্কার, বেগম পত্রিকার ৫০ বছর পূর্তি পুরস্কার, বাংলাদেশ ফটোগ্রাফিক সোসাইটির সম্মানসূচক ফেলোসহ বিভিন্ন পুরস্কার ও স্বীকৃতি পান তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here