অনলাইন ডেস্কঃ অনুশীলন শুরু করার অনুমতি দেওয়ার এক দিন পরই সেই আদেশ প্রত্যাহার করে নিয়েছে নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এত টাইগারদের অনুশীলনে নামার অপেক্ষা আরও বাড়ছে।

এ ব্যাপারে শুক্রবার বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের টিম অপারেশন ম্যানেজার নাফিস ইকবাল বলেন, নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ‍্য মন্ত্রণালয় থেকে অনিবার্য কারণে এ সিদ্ধান্ত এসেছে। আমরা তিনটি করোনা টেস্ট পরীক্ষা করিয়েছি, আমাদের আরও একটি পরীক্ষা বাকি রয়ে গেছে। যেটায় নেগেটিভ হলে আমরা পুরোপুরি মুক্ত হয়ে যেতাম।

নাফিস ইকবাল আরও বলেন, আগে থেকেই নিউজিল‍্যান্ডে নিয়ম ছিল ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন। সফরের কিছু দিন আগে সমঝোতার মাধ‍্যমে এটা সাত দিন করা হয়। এই সাত দিনের মধ্যে হোটেলে তিন দিন কোয়ারেন্টিন। মূলত এটা ১০ দিনের সব সময়ই ছিল। প্রথম সাত দিন ছিল এমআইকিউতে, বাকি তিন দিন হোটেলে। হোটেলে থাকার তিন দিনে অনুশীলন করা যাবে। তবে হোটেলে ফিরে গিয়ে আইসোলেশনেই থাকতে হবে।

জাতীয় দলের সাবেক এই তারকা ক্রিকেটার আরও বলেন, এখন হয়ত একটাই পরিবর্তন আসবে, এমআইকিউর অধীনেই আমাদের ১০ দিন থাকতে হতে পারে। আর কাল যে অনুশীলনের অনুমতি পেয়েছিলাম, অনিবার্য কারণবশত সেটা সরকারের পক্ষ থেকেই নিষেধ করা হয়েছে।

নিউজিল্যান্ড সফরে গিয়ে করোনা পজিটিভ হওয়া বাংলাদেশ দলের স্পিন কোচ রঙ্গনা হেরাথ প্রসঙ্গে নাফিস ইকবাল বলেন, হেরাথ ভালো আছেন। দিন দিন তার অবস্থার উন্নতি হচ্ছে। তার সঙ্গে দলের নিয়মিত যোগাযোগ রয়েছে। আশা করছি, শিগগিরই তাকে আমাদের সঙ্গে পাব।

নিউজিল্যান্ডে সফরে দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ দল। ১ জানুয়ারি থেকে শুরু প্রথম টেস্ট। সূত্রঃ যুগান্তর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here