অনলাইন ডেস্কঃ দক্ষিণপূর্ব ইউক্রেনে দেশটির সেনাবাহিনীর সঙ্গে যুদ্ধে সিরিয়া-লেবাননের দুই ডজন ভাড়াটে সেনা নিহত হওয়ার দাবি করছেন ইউক্রেনের কর্মকর্তারা।

ইউক্রেনের জাতীয় নিরাপত্তা কাউন্সিলের সচিব ওলেক্সি দানিলোভ এনভি অনলাইন ম্যাগাজিনে এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, দক্ষিণপূর্ব লুহানস্ক অঞ্চলের পোপাসনা অঞ্চলে একটি সামরিক ইউনিট সম্পূর্ণ ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে। ছোট ওই ইউনিটে ২০-২৫ জন ছিল।

অনুমান করে ইউক্রেনের এই কর্মকর্তা বলেন, লুহানস্ক এবং দোনেতস্ক অঞ্চলে ৩০০ থেকে ৫০০ সিরিয়া  এবং লিবিয়ার ভাড়াটে সেনা যুদ্ধ করছে।

ইউক্রেনে রাশিয়ার হয়ে যুদ্ধে যোগ দিতে সিরিয়ার কয়েক হাজার যোদ্ধা নিবন্ধন করেছেন বলে জানিয়েছেন সিরিয়া পর্যবেক্ষক ও বিশ্লেষকরা।

তারা বলছেন, এই যোদ্ধাদের মধ্যে রাশিয়ার কাছ থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সিরিয়ার সেনা, সাবেক বিদ্রোহী ও সিরিয়ায় বছরের পর বছর ধরে যুদ্ধ করা অভিজ্ঞ যোদ্ধারা আছেন। নিয়োগের ক্ষেত্রে মস্কো নিজেদের কাছ থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদেরই প্রাধান্য দিচ্ছে।

ইউক্রেনে হামলার শুরুর দিকে ক্রেমলিন দাবি করে, রাশিয়ার হয়ে যুদ্ধে লড়তে মধ্যপ্রাচ্য থেকে ১৬ হাজারের বেশি আবেদন এসেছে। তবে মার্কিন কর্মকর্তা এবং সিরিয়া পর্যবেক্ষকরা বলেছেন, এই অঞ্চল থেকে এখনও উল্লেখযোগ্য সংখ্যক যোদ্ধা ইউক্রেনের যুদ্ধে যোগ দেননি।

যদিও পুতিন ইউক্রেন যুদ্ধের নতুন কমান্ডার হিসেবে আলেকজান্ডার ডভোর্নিকভকে নিয়োগ দেওয়ার পর বিদেশি যোদ্ধাদের যোগদানের সম্ভাবনা বেড়েছে। কারণ, ডভোর্নিকভ সিরিয়ায় রাশিয়ান সামরিক বাহিনীর নেতৃত্বে ছিলেন। সূত্রঃ বাংলাদেশ প্রতিদিন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here