অনলাইন ডেস্কঃ আফগানিস্তানের পশ্চিমাঞ্চলের প্রদেশ হেরাতে একদল অস্ত্রধারীর সঙ্গে তালেবানের তুমুল লড়াইয়ের খবর পাওয়া গেছে। লড়াইয়ে নিহত হয়েছেন অন্তত ১৬ জন। এর মধ্যে সাতজন শিশু ও তিনজন নারী রয়েছেন।

সোমবার একটি সূত্রের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানায় আফগানিস্তানের গণমাধ্যম টোলো নিউজ।

সূত্রটি জানায়, এ ঘটনায় ইসলামিক আমিরাতের তিনজন নিহত হয়েছেন। যে ঘরে হামলা চালানো হয়েছে, সেটির মালিক দায়েশসংশ্লিষ্ট কেউ।

তথ্য ও সংস্কৃতি বিভাগের হেরাতপ্রদেশের পরিচালক মৌলভী নাইমুল হক হাক্কানি বলেন, সংঘর্ষে চার অপহরণকারী নিহত হয়েছেন।

হেরাত শহরের পুলিশ কর্মকর্তা মীর আঘা বলেন, আমরা বিপুল অস্ত্র, বিস্ফোরণ ও গ্রেনেড জব্দ করেছি।

ইসলামিক আমিরাতের এক সদস্য বলেন, সংঘর্ষ শুরু হয়েছে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে। চলে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। অস্ত্রধারীদের হাতে একে-৪৭ এবং মেশিনগান ছিল।
সংঘর্ষে আশপাশের বেশ কিছু ঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

একটি গোত্রের প্রবীণ ব্যক্তি মুহাম্মদ ওসমান বলেন, সংঘর্ষের ঘটনায় অন্তত আটটি ঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

গত দুই মাসে হেরাতপ্রদেশ এমন ভয়াবহ সংঘর্ষ দেখেনি।

১৫ আগস্ট কাবুলের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর থেকে তালেবান দায়েশকে ঠেকানোর চেষ্টা শুরু করে। এর মধ্যে দেশের বিভিন্ন জায়গায় শিয়া সম্প্রদায় এবং তালেবানের নিরাপত্তারক্ষীর ওপর হামলা চালিয়েছে জঙ্গিগোষ্ঠীটি। সূত্রঃ যুগান্তর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here